ইজিবাইকের চাকায় মাথার চুল জড়িয়ে মৃত্যু শয্যায় তরুণী

এবার ইজিবাইকের চাজায় মাথার চুল জড়িয়ে দুর্ঘটনার শিকার হয়েছেন সাতক্ষীরা তালা উপজেলার কুমিরা ইউনিয়নের রাড়ীপাড়া গ্রামের নেপাল মজুমদারের মেয়ে ঝুম্পা মজুমদার (২০)। গত ৩ নভেম্বর ইজিবাইকে চড়ে অনার্স প্রথম বর্ষের পরীক্ষা দিতে সাতক্ষীরা শহরে যাওয়ার সময় এ দুর্ঘটনা ঘটে। এ সময় মাথার চামড়াসহ চুল উপড়ে যায় তার।

বর্তমানে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বেডে মৃত্যুর প্রহর গুনছেন ঝুম্পা। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, উন্নত চিকিৎসা করা গেলে ঝুম্পাকে স্বাভাবিক জীবনে ফেরানো সম্ভব। তবে, এ চিকিৎসা অত্যন্ত ব্যয়বহুল। এদিকে মেয়ের এই দুরাবস্থায় চিকিৎসা খরচ নিয়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন তিন সন্তানের জনক নেপাল মজুমদার।

এ বিষয়ে ঝুম্পার চাচাতো ভাই কালিপদ মজুমদার বলেন, ঝুম্পার চুল অনেক লম্বা। ৩ নভেম্বর সে সাতক্ষীরায় পরীক্ষা দিতে যাওয়ার পথে ইজিবাইকের চাকায় তার চুল জড়িয়ে যায়। এ সময় মাথার বিভিন্ন অংশের চামড়া উঠে যায় এবং মাথায় গুরুতর আঘাত পায়। তাকে প্রথম সাতক্ষীরা মেডিকেলে নেওয়া হলে সেখান থেকে খুলনা মেডিকেলে পাঠানো হয়। বর্তমানে ঝুম্পা খুলনা মেডিকেলের চিকিৎসাধীন রয়েছে। চিকিৎসকরা তাকে ঢাকায় নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন।

এদিকে ঝুম্পা মজুমদারের বাবা নেপাল মজুমদার বলেন, ‘আমি অন্যের জমিতে কৃষিকাজ করে সংসার চালায়। মেয়ের চিকিৎসার জন্য প্রচুর টাকার প্রয়োজন। যা আমার একার পক্ষে জোগাড় করা সম্ভব নয়। এজন্য সমাজের সর্বস্তরের মানুষের সাহায্য প্রয়োজন। আপনারা আমার ঝুম্পাকে বাঁচান।’ এদিকে ঝুম্পার চিকিৎসার জন্য সাহায্য পাঠাতে ০১৭২৫৮৮৮৭৩০ নাম্বারে যোগাযোগ করার অনুরোধ জানানো হয়েছে।

Leave a Comment