দাদু আর কাকার ধর্ষণ, বাড়ি বদলানোর পর বাবারও লালসার শিকার কিশোরী

দাদু আর কাকা তাকে প্রায়ই ধর্ষণ করতেন বলে অভিযোগ। বাড়ি বদলেও কোনও লাভ হয়নি। দাদু আর কাকার হাত থেকে বাঁচলেও দু’বছর বাবার লালসার শিকার হতে হয়েছে বলে অভিযোগ তুলল উত্তরপ্রদেশের এক কিশোরী।বছর সতেরোর ওই কিশোরী দাদু, কাকা-বাবার সঙ্গে উত্তরপ্রদেশে থাকত। সেই সময় কাকা তাকে ধর্ষণ করেন বলে অভিযোগ। পরে তাঁর সঙ্গে যোগ দিয়েছিলেন কিশোরীর দাদুও। কিশোরীর বাবা-মা ঘুণাক্ষরেও টের পাননি বাড়ির সদস্যরাই মেয়েকে লালসার শিকার বানাচ্ছেন। আঁচ পাওয়ার পরই কিশোরীকে নিয়ে তার বাবা-মা পুণেতে চলে আসেন। সেখানে থাকতে শুরু করেন।অভিযোগ, কিশোরীর মা যখন বাড়িতে থাকতেন না, সেই সুযোগ নিয়ে কিশোরীকে তার বাবাও লালসার শিকার বানান। ২০১৬ থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত লাগাতার দু’বছর ধরে বাবার লালসার শিকার হয়েছে বলে কিশোরীর অভিযোগ।

Leave a Comment